এজেন্ট বের করে নৌকায় ভোট দিতে বাধ্য করার অভিযোগ - Sangbad Protidin | সংবাদ প্রতিদিন

ব্রেকিং নিউজ

সোমবার, ২৮ ডিসেম্বর, ২০২০

এজেন্ট বের করে নৌকায় ভোট দিতে বাধ্য করার অভিযোগ

সংবাদ প্রতিদিন ডেস্ক:
সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর পৌরসভা নির্বাচনে কেন্দ্রগুলোতে নৌকা ও কাউন্সিলরদের এজেন্ট থাকলেও বিএনপি প্রার্থীর কোনো এজেন্ট দেখা যায়নি।

অভিযোগ উঠেছে অনেক কেন্দ্রে ইভিএম মেশিনে আঙ্গুলের ছাপ নেয়ার পর ভোটারদেরকে নৌকা প্রতীকে ভোট প্রদানে বাধ্য করা হচ্ছে।

সকাল থেকেই কেন্দ্রগুলোতে ভোটারের দীর্ঘলাইন দেখা গেছে। এই প্রথম শাহজাদপুর পৌরসভায় ইভিএমে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হচ্ছে। ইভিএমে ভোট প্রদান করে অনেকেই সন্তোষ প্রকাশ করেছেন। তবে বয়স্ক ও নারী ভোটারদের ইভিএমে ভোট দিতে নানা বিড়ম্বনায় পড়তে হয়েছে।

এদিকে কেন্দ্রগুলোতে নৌকার ব্যাচ পরিহিতরা থাকলেও কোথাও ধানের শীষ সমর্থকদের দেখা যায়নি। এমনকি কোনো পোস্টারও লাগানো হয়নি। সকাল থেকেই নৌকা প্রার্থী মনির আক্তার খান তরুলোদী প্রতিটি কেন্দ্র পর্যবেক্ষণ করেছেন। তবে সকাল আটটায় ভোটগ্রহণ শুরু হলেও বেলা ১১টা পর্যন্ত বিএনপি প্রার্থী বাসা থেকে বের হননি।

সাংবাদিকদের ডাকে বাসা থেকে বের হয়ে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী মাহমুদুল হাসান সজল জানান, সকাল থেকে ফোনে প্রতিটি কেন্দ্রে খোঁজ নেয়া হয়েছে। কিছু কেন্দ্রে এজেন্টকে বের করে দেয়া হয়েছে আবার অনেক কেন্দ্রে এজেন্টকে ঢুকতে দেয়া হয়নি।

তিনি অভিযোগ করে বলেন, কাউন্সিলর প্রার্থীর ভোট হলেও মেয়র পদে নৌকা প্রতীকে প্রকাশ্যে ভোট নেয়া হচ্ছে।

তবে এ বিষয়ে আওয়ামী লীগ প্রার্থী মনির আক্তার তরুলোদী বিএনপি প্রার্থীর অভিযোগ প্রত্যাখান করে জানান, ভোট সুষ্ঠু-শান্তিপূর্ণ পরিবেশে অনুষ্ঠিত হচ্ছে। জনগণ স্বতস্ফূর্তভাবে ভোট প্রদান করছে।

আওয়ামী লীগ নেতা ও বর্তমান মেয়র হালিমুল হক মিরু জানান, বিএনপি প্রার্থীর বাবা-মা আওয়ামী লীগ করে। বিএনপি এমন পরিবারে প্রার্থী দিয়েছে যাতে প্রার্থী বের হবে না, কিন্তু মিথ্যাচার করা যাবে। এটা বিএনপির অপকৌশল। সে ঘরে বসে মিথ্যা ও বানোয়াট অভিযোগ করছে।

রিটার্নিং অফিসার ও জেলা নির্বাচন অফিসার মো.আবুল হোসেন জানান, এজেন্টকে বের করে দেয়া হয়েছে এমন অভিযোগ আমাদের কাছে নেই। তবে আমরা যতটুকু জেনেছি বিএনপি অনেক কেন্দ্রে এজেন্টই দেয়নি। আর আমরা সকাল থেকে কেন্দ্রগুলো পর্যবেক্ষণ করেছি বিএনপির প্রার্থীকে কোনো কেন্দ্রে দেখা যায়নি। লিখিত কোনো অভিযোগও দেয়নি।

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন