রাজশাহীতে তিন নারী ধর্ষণের শিকার - Sangbad Protidin | সংবাদ প্রতিদিন

ব্রেকিং নিউজ

রবিবার, ১৬ আগস্ট, ২০২০

রাজশাহীতে তিন নারী ধর্ষণের শিকার


সংবাদ প্রতিদিন ডেস্ক:
রাজশাহীতে দুই শিশু ও স্কুলছাত্রীসহ তিন নারী ধর্ষণের শিকার হয়েছে। মোহনপুর ও চারঘাট উপজেলায় এ ঘটনা ঘটে। এসব ঘটনায় একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, মোহনপুরে দশম শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণ এবং মোবাইলে ভিডিও ধারণের অভিযোগে আল-আমিন ওরফে মোমিন (৩৩) নামের এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ছাত্রীর মায়ের দায়ের করা মামলায় শনিবার রাতে তাকে গ্রেফতার করে মোহনপুর থানা পুলিশ। রোববার দুপুরে তাকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়।

গ্রেফতার আল-আমিন ওরফে মোমিন গোদাগাড়ী উপজেলার পিরিজপুর গ্রামের মৃত তাহসিন আলীর ছেলে। তিনি মোহনপুরে বাড়ি ভাড়া নিয়ে বসবাস করছিলেন।

মোহনপুর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোস্তাক আহম্মেদ বলেন, প্রেমের ফাঁদে ফেলে ১৫ জুলাই নিজ ভাড়া বাড়িতে ডেকে নিয়ে ওই ছাত্রীকে ধর্ষণ করেন মোমিন। ধর্ষণের ভিডিও মোবাইলে ধারণ করেন তিনি। এরপর সেই ভিডিও দিয়ে ছাত্রীকে ব্ল্যাকমেইল শুরু করেন। ইন্টারনেটে ভিডিও ছড়িয়ে দেয়ার ভয় দেখান। পরে বিষয়টি পরিবারকে জানায় ছাত্রী। এ নিয়ে মামলা হলে আসামিকে গ্রেফতার করা হয়।

এদিকে, টিভিতে কার্টুন দেখানোর লোভ দেখিয়ে চারঘাট উপজেলায় দুই শিশুকে ধর্ষণ করেছেন প্রান্তিক (২০) নামের এক বখাটে। শনিবার বিকেলে উপজেলার গোপালপুর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। প্রান্তিক একই গ্রামের আবু আলীর ছেলে। ঘটনার পর থেকেই পলাতক রয়েছেন প্রান্তিক। নির্যাতনের শিকার দুই শিশুর বয়স সাড়ে পাঁচ ও ছয় বছর। সম্পর্কে তারা চাচাতো বোন। ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য রোববার তাদের রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

চারঘাট মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সমিত কুমার কুন্ডু বলেন, কার্টুন দেখানোর লোভ দেখিয়ে প্রতিবেশী দুই শিশুকে নিজ ঘরে নিয়ে যায় প্রান্তিক। তারপর পাশবিকতা চালায়। বাড়ি ফিরে অসুস্থ হয়ে পড়ে দুই শিশু। এরপর বিষয়টি টের পায় পরিবার। ঘটনা জানাজানি হলে বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে যায় অভিযুক্ত যুবক। পরে এক শিশুর বাবা বাদী হয়ে থানায় মামলা করেন। অভিযুক্ত ব্যক্তিকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন