অনলাইনে ম্যাকেঞ্জির সাথে কী কথা হয়েছে আফিফের? - Sangbad Protidin | সংবাদ প্রতিদিন

ব্রেকিং নিউজ

বৃহস্পতিবার, ২৭ আগস্ট, ২০২০

অনলাইনে ম্যাকেঞ্জির সাথে কী কথা হয়েছে আফিফের?

স্পোর্টস ডেস্ক:
তাকে ধরাই হয় টি-টোয়েন্টি স্পেশালিস্ট। অল্প সময়ে ১২টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচও খেলে ফেলেছেন। আহামরি পারফর্ম করতে না পারলেও আফিফ হোসেন ধ্রুব নিজেকে মোটামুটি টি-টোয়েন্টি স্পেশালিস্ট হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করে ফেলেছেন।

যেহেতু শ্রীলঙ্কার সাথে শুধুই টেস্ট সিরিজ, তাই হয়তো তাকে দেখা যাবে না। কারণ আফিফকে দীর্ঘ পরিসরের ক্রিকেটে সেভাবে বিবেচনায় আনা হয় না। তিনি নিজেও আপাতত দীর্ঘ পরিসরের ক্রিকেটে জাতীয় দলে ঢুকতে সেভাবে মরিয়া নন। বরং সীমিত ওভারের ফরম্যাটেই বেশি মনোযোগী।

তারপরও এখন শেরে বাংলায় যে বহরটি ব্যক্তিগত ইচ্ছেতে অনুশীলন করে যাচ্ছে নিয়মিত, আফিফ হোসেন ধ্রুব সেই বহরের একজন। আর সবার মত লকডাউনেও আফিফের সময়টা কঠিন গেছে।

অন্য সবার মত তিনিও বাসায় বসেই ফিটনেস ধরে রাখার চেষ্টা করেছেন। এছাড়া অনলাইনে কোচদের সাথে যে সভাগুলো হয়েছে, তা থেকে সর্বোচ্চ ফায়দা নিতেও প্রাণপন চেষ্টা করেছেন।

তারপরও মাঠের প্রস্তুতি তো আর অনলাইনে হয় না? মিরপুরের হোম অব ক্রিকেটে খোলা আকাশের নিচে অনুশীলন করতে এসে তাই অন্যরকম অনুভূতি কাজ করছে জাতীয় দলের এই তরুণ অলরাউন্ডারের।

তাইতো মুখে এমন কথা, ‘লকডাউনের সময়টা অবশ্যই কঠিন গিয়েছে। আমাদের কোচিং স্টাফ, ট্রেনাররা যেসব সূচি তৈরি করে দিয়েছেন, তা বাসায় করার চেষ্টা করেছি। এছাড়া অনলাইনে যে সব সভা হয়েছে, সেগুলো অনেক বুস্ট আপ করেছে। আর এখন মিরপুর এসে অনুশীলন করতে পেরে ভালো লাগছে। নিজের যে সব সেশন দরকার, তা করতে পারছি। আশা করি এগুলো সামনে ভালো কাজে দেবে।’

আফিফ মানছেন, সব ধরনের খেলা বন্ধ থাকাটা একজন ক্রিকেটার হিসেবে আর সবার মত তার জন্যও নেতিবাচক। আগামীতে খেলা মাঠে গড়াতে যাচ্ছে। সেটাকে খুবই ভালো খবর এবং ক্রিকেটারদের জন্য মঙ্গল বলেও মনে হয় তার।

আফিফ বলেন, ‘সকল খেলা বন্ধ ছিল, অবশ্যই এটা খেলোয়াড় হিসেবে কঠিন। সামনে খেলা শুরু হচ্ছে, এটা ভালো দিক। সামনের খেলাগুলোতে যেন ভালো করতে পারি, সে আশাই রাখি। আর আপাতত সে লক্ষ্যকে সামনে রেখেই অনুশীলন করছি।’

লকডাউনের সময় তেমন কিছু করতে না পারলেও সাবেক ব্যাটিং কোচ নেইল ম্যাকেঞ্জির কাছ থেকে অনলাইন আলোচনায় যতটা সম্ভব ব্যাটিং টেকনিকটা ঝালিয়ে নিতে চেষ্টা করেছেন আফিফ। আফিফের বিশ্বাস, ঐ সময়টায় তার ব্যাটিং টেকনিকের কিছুটা উপকারও হয়েছে।

ম্যাকেঞ্জি তাকে বেশ ভালো কিছু পরামর্শ দিয়েছেন উল্লেখ করে এই অলরাউন্ডার বলেন, ‘লকডাউনের সময়টাতে আসলে ব্যাটিং নিয়ে চিন্তা করার অনেক সময় পেয়েছি। আমাদের যে সাবেক ব্যাটিং কোচ ছিলেন নেইল ম্যাকেঞ্জি, তার সাথে অনলাইনে আলোচনায় ব্যাটিংয়ের কিছু টেকনিক নিয়ে কাজ করেছি। আর ওগুলোই আপাতত করার চেষ্টা করছি। ওগুলো ফিক্স করতে পারলে হয়তো আরও বেটার পারফর্ম করতে পারবো।’

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন